colorgeo.com

Disaster and Earth Science

পারমিয়ান (Permian)গনবিলুপ্তি পরবর্তী বাস্তুতন্ত্রের পুনরুদ্ধারে ৩ মিলিয়ন সময় বছর নেয়

Permian
Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

পার্মিয়ান (Permian) সময়ের শেষ ভাগে স্বাদুপানির জলাশয় যেমন  নদী এবং বিল এই সমস্ত জলাধারে বিদ্যমান বাস্তু সংস্থান এর পুনরুদ্ধার এর সময় অনেক দেরিতে সম্পন্ন হয়। সাধারণভাবে জলাশয় এর বাস্তুসংস্থানের পারমেন সময়ের গণবিলুপ্তির ধ্বংসাত্মক প্রভাবের কারণে পুনরুদ্ধার একটি স্বাভাবিক প্রক্রিয়া। কিন্তু স্থলভাগের বনায়ন উজার করা বৃহৎ আকারে মাটির ক্ষয় সাধন এবং বৈশ্বিক উষ্ণতা বৃদ্ধির কারণে এই ধরনের জলাশয়গুলোতে ক্ষতিকর অ্যালগি ও ব্যাকটেরিয়া সংখ্যা বৃদ্ধি পায়। যার ফলে স্বাদুপানির বাস্তুসংস্থানের স্বাভাবিকের তুলনায় পুনরুদ্ধার দেরি হয়। বিশ্ব বিখ্যাত বৈজ্ঞানিক জার্নাল নেচার কমিউনিকেশন এ প্রকাশিত একটি গবেষণা প্রবন্ধে এই দাবি উত্থাপন করা হয়েছে।

permian
কপিরাইটঃ Chris MaysNature Communications volume 12, Article number: 5511 (2021) 

তারা দাবি করেন যে জলবায়ু পরিবর্তন এবং বন উজাড় হয়ে যাওয়া মূলত অণুজীব বিশেষত ক্ষতিকর অণুজীবগুলো বৃদ্ধি ঘটে যার কারণে কয়েক মিলিয়ন বছর সময় সময় দেরি হয় স্বাদুপানির বাস্তুসংস্থান এর পুনরুদ্ধার করার ক্ষেত্রে। কারণ 252 দশমিক 2 মিলিয়ন বছর আগে ঘটে যাওয়া পার্মিয়ান (Permian) গণবিলুপ্তির সময়ে পৃথিবীর স্থলভাগ ও জলভাগের 70 % ও 95% যথাক্রমে প্রাণীর বিলুপ্ত হয়। এর প্রভাব স্থলভাগের স্বাদুপানির বাস্তুসংস্থানের উপর ও পড়ে। কিন্তু বৈশ্বিক উষ্ণতা বৃদ্ধি বন উজাড় হয়ে যাওয়া এবং মাটির ক্ষয় সাধন হওয়ার কারণে ক্ষতিকর অ্যালগি ও ব্যাকটেরিয়া জন্ম নিলে স্বাদু পানিতে বাস্তুসংস্থান স্বাভাবিক অবস্থার থেকে দেরিতে পুনরুদ্ধার হয়। অস্ট্রেলিয়ার সিডনি এলাকাতে নেচার কমিউনিকেশন জার্নাল প্রকাশিত গবেষণায় ক্রিস মে বলেন, তারা ফসিল পাললিক শিলা থেকে উদ্ধারকৃত ভূ রাসায়নিক তথ্য নিয়ে গবেষণা করে দেখেছেন যে স্বাদুপানির অথবা লবণ মিশ্রিত  ব্রাকিশ জলাধারে অ্যালগি বৃদ্ধি পায়। পার্মিয়ান (Permian) সময়ের গণবিলুপ্তির পরে বাস্তুসংস্থানের পুনরুদ্ধারের পূর্বেই এই ধরনের ক্ষতিকর এলজি প্রাদুর্ভাব ঘটে এবং এটা প্রায় 100 হাজার বছর ধরে চলতে থাকে। পরবর্তী ৩ মিলিয়ন বছর ধরে অ্যালগি ও ব্যাকটেরিয়া বিদ্যমান থাকে যেখানে অক্সিজেনের স্বল্পতা এবং বিল ও নদীগুলো বিষাক্ত হয়ে যায়। এভাবে ভূতাত্ত্বিক সময়ের সাথে তুলনা করলে দেখা যায় ক্ষতিকর অণুজীবগুলোর প্রাদুর্ভাব স্বাদুপানির জলাধার  গুলোতে বাস্তুসংস্থানের  পুনরুদ্ধারের জন্য একটি  প্রতিবন্ধক হিসেবে কাজ করে, যার সময়সীমা ছিল বৈশ্বিক উষ্ণতা বৃদ্ধিজনিত গণবিলুপ্তির ঘটনা পর্যন্ত ।

অ্যালগি ও সালোকসংশ্লেষণ ব্যাকটেরিয়াগুলো ভূমিকা কি?

অ্যালগি ও সালোকসংশ্লেষণ ব্যাকটেরিয়াগুলো জলাধারের খাদ্য চক্রের মূল ভিত্তি। কিন্তু তাদের অধিক প্রবৃদ্ধি জলজ প্রাণীর জন্য হুমকিস্বরূপ। অধিক পরিমাণে এই অ্যালগি ও ব্যাকটেরিয়াগুলো বৃদ্ধি পেলে যেকোনো জলাধারে বিদ্যমান জীবন রক্ষাকারী অক্সিজেনের ঘাটতি দেখা দেয় এবং কিছু বিষাক্ত পদার্থ তৈরি হয়। যখন ওই জলাধারে বিদ্যমান ব্যাকটেরিয়া  অ্যালগি গুলো মারা যায় গুলোর মারা যায় এবং পচন প্রক্রিয়া শুরু হয়। যেকোনো জলাধারের ব্যাকটেরিয়া গুলোর বৃদ্ধি মূলত তাপমাত্রা বৃদ্ধি ও অধিক পুষ্টি বিশেষত ভূমিক্ষয় হওয়ার মাধ্যমে তৈরি হয়। যেহেতু কার্বন-ডাই-অক্সাইড ও তাপমাত্রা বৃদ্ধির সাথে ক্ষতিকর অণুজীবগুলো প্রবৃদ্ধি সম্পর্কিত তাই বলা যায় ভবিষ্যতেও এই ক্ষতিকর অণুজীবগুলো বৃদ্ধি পাবার সম্ভাবনা রয়েছে।

ঠিক একই রকম বৈশ্বিক উষ্ণতা সম্পন্ন পরিবেশ বিদ্যমান ছিল আজ থেকে 252 দশমিক 2 মিলিয়ন বছর আগের পৃথিবীতে যাকে বলা হয়  পার্মিয়ান গণবিলুপ্তি সময়।

পার্মিয়ান (Permian) গণবিলুপ্তির সময়ে বৈশ্বিক তাপমাত্রা বেড়ে যায় 6 থেকে 12 ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং কোথাও 10 থেকে 14 ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত যেখানে কার্বন ডাই অক্সাইড বৃদ্ধি পায় প্রায় 600 শতাংশ। এসব ঘটে মূলত বর্তমান সাইবেরিয়াতে বৃহৎ আকারের আগ্নেয়গিরির অগ্ন্যুৎপাতের ফলে। এর ফলে দীর্ঘমেয়াদে স্থলভাগের যে ক্ষতিটা হয় তারমধ্যে জলাভূমিতে বিদ্যমান গাছপালার ধ্বংস এবং পূর্ব এশিয়াতে কয়লা উৎপাদনকারী বৃক্ষের পতন।

এইগুলোর প্রত্যক্ষ প্রমাণ সমস্ত পৃথিবীব্যাপী রয়েছে এবং একটি বৈশ্বিক কয়লার শূন্যতা তৈরি করে পাললিক শিলায় স্তরে প্রমাণ পাওয়া যায় যার সময়সীমা ব্যাপ্তি ছিল কয়েক মিলিয়ন বছর।

 তবে পরবর্তীতে বাস্তুসংস্থানের পুনরুদ্ধারের বিষয়ে খুব বেশি জানা যায় না কারণ বাস্তুসংস্থান এর স্থান থেকে কমসংখ্যক তথ্য-প্রমাণাদি সম্পন্ন জৈব যৌগ পাওয়া যায় এবং বৃহৎ আকারে ক্ষয়প্রাপ্ত হয় এবং প্রত্যক্ষ প্রমাণের সাক্ষী স্বরূপ পাললিক শিলার না থাকা এবং ফসিল ও স্থলভাগের ওই সময়ের প্রমাণাদির পাথরের স্তর না থাকা।

নেচার কমুনিকেশন থেকে অনুদিত লিঙ্ক


Please follow and like us:

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
%d bloggers like this: