colorgeo.com

Disaster and Earth Science

5 Biggest Landslide: পৃথিবীর ইতিহাসের সবচেয়ে ভয়ঙ্কর পাঁচটি ভূমিধস

morocco-landslide

ভূমিধ্বসকে ইংরেজিতে বলা হয়  (Landslide)।  ভূমিধ্বস সংজ্ঞায় বলা হয়েছে, যখন অভিকর্ষ বলের প্রভাবে শুকনা ভূখণ্ড বা  শিলা উভয়ের প্রত্যক্ষভাবে নিম্নমুখী পতনকে ভূমিধ্বস landslide বলা হয় । বর্তমান শতাব্দীতে ভূমিধ্বস একটি পরিচিত প্রাকৃতিক দুর্যোগ । ভূমিধ্বস অনেক কারণে হতে পারে, ভূমিধ্বসের উল্লেখযোগ্য কয়েকটি কারণ হলোঃ

 ১। ভূগর্ভস্থ পানিরঅত্যাধিক চাপ ।

 ২। ভূমিক্ষয় ।।

৩। প্রচুর বৃষ্টিপাত বা অত্যাধিক পরিমাণে বরফ গলার  কারণে মাটির তরলীভূত হয়ে যাওয়া ।

৪। অগ্নুৎপাত ।

পৃথিবীর ইতিহাসে সবচেয়ে ভয়ংকর ৫ টি ভূমিধ্বস Landslide ইতিহাস

রাঙ্গামাটি -চট্টগ্রাম- বান্দরবান বাংলাদেশ Landslide (১৩ জুন ২০১৭) 

বাংলাদেশের পার্বত্য জেলা রাঙ্গামাটি, চট্টগ্রাম এবং বান্দরবান।অপরূপ সৌন্দর্যের লীলাভূমি এই তিন জেলা বরাবরই দর্শকদের কাছে আকর্ষণের নাম । দুর্ভাগ্যজনকভাবে, ১৩ই জুন ২০১৭ এই তিন জেলায় অত্যাধিক অতিবৃষ্টির কারণে পাহাড়ধসে ১৪০ জন মানুষের মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে,তার মধ্যে রয়েছে চারজন সেনাবাহিনীর সদস্য ছিল। দুর্গম পাহাড়ি এলাকা এবং বিরূপ আবহাওয়ার কারণে মৃত্যুর প্রকৃত সংখ্যা জানা যায়নি ।ভূমিধসের ফলে বান্দরবান রাঙ্গামাটির সাথে  পুরো দেশের যোগাযোগ ব্যবস্থা বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় । এত ভয়ঙ্কর ভূমিধ্বস landslide বাংলাদেশ এর আগে  কখনো দেখেনি । সরকারি হিসেবে  ভূমিধসে মৃতের সংখ্যা ছিল মোট ১৪৮ জন তবে বেসরকারি হিসাব বলতেছে এই সংখ্যা দ্বিগুণেরও বেশি হতে পারে ।

Landslide
Death toll now 152 ফটোঃ ঢাকা Tribune

মরক্কো Landslide (১ এপ্রিল ২০১৭)

শান্তিপ্রিয় মরক্কো। কিন্তু ১ এপ্রিল ২০১৭ সালের ভূমিধস মরক্কোর  ইতিহাসে সবচেয়ে বড় প্রাকৃতিক বিপর্যয় । এই ভূমিধসের আগে দিন ,আটলান্টিক মহাসাগর থেকে ভেসে আসা আদ্র বাতাসের ফলে পুরো মরক্কোতে ভারী বর্ষণ হয় ।অত্যাধিক  ভারী বর্ষণের ফলে পাহাড় ধসের মতো ভয়ঙ্কর ঘটনা ঘটে । সরকারি হিসাব বলতেছে, এই ভূমিধসে মৃতের সংখ্যা ছিল ৩১৬ জন । আহত ৩৩২ জন এবং নিখোঁজ ১০৬ জন ,। ভূমিধসের ফলে ভেঙ্গে পড়ে অসংখ্য ঘরবাড়ি ।মরক্কোর শহরের ৪৫ হাজার মানুষ এই ভয়ঙ্কর ভূমিধসের শিকার হন । মরক্কোর ইতিহাসে এই ভূমিধস ছিল এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বড় প্রাকৃতিক বিপর্যয় ।

Landslide
ফটোঃ BBC

বাদাকসান আফগানিস্থানে Landslide ( ২৩ এপ্রিল ২০১৫)

যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশ আফগানিস্তান। ২০১৫ সালের ২৩ এপ্রিল আফগানিস্তানের ইতিহাসে সবচেয়ে বড় ভূমিধসের ঘটনা ঘটে বাদাকসান জেলায় ।এ ভূমিধসে মৃতের সংখ্যা ছিল ৫২ জন এবং অনেক মানুষ আহত হন । সরকারি হিসাব মতে এই ভূমিধসে ১০০টির মত ঘর বাড়ি ধ্বংস হয়ে যায়। ভয়াবহ এই ভূমিধসের দুইদিন পর ২৬ এপ্রিল আবারো ভূমিধসের ঘটনা ঘটে। এতে ১২০ টি পরিবার স্থানচ্যুত হয় । ভূমিধস বর্তমানে আফগানিস্তানে একটি নিত্যনৈমিত্তিক ঘটনা হয়ে দাঁড়িয়েছে ।তবে অন্যান্য ভূমিধসের চেয়ে ক্ষয়ক্ষতি এবং প্রাণহানির দিক দিয়ে বেশি ভয়ঙ্কর ছিল এই ভূমিধস ।আফগানিস্তানের ঘনঘন ভূমিধস হওয়ার অন্যতম কারণ গাছপালা ব্যাপকভাবে কমে যাওয়া ।

Landslide
Afghanistan Landslide 2015

বেনজারনিগারা ইন্দোনেশিয়া Landslide ( ১৩ ডিসেম্বর ২০১৪) 

হাজার দ্বীপের দেশ ইন্দোনেশিয়া । উন্নত সভ্যতা ও সংস্কৃতির  ইন্দোনেশিয়াকে  এক অনন্য স্থানে নিয়ে গিয়েছে । ২০১৪ সালের ১৩  ডিসেম্বর ইন্দোনেশিয়ার  ইতিহাসে সবচেয়ে বড় ভূমিধসের ঘটনা ঘটে। ঘটনাটি ঘটেছিল ইন্দোনেশিয়ার সেন্ট্রাল জাভার বেনজারনিগার অঞ্চলে । এই ভূমিধসে মৃতের সংখ্যা ছিল ৯৩ জন এবং নিখোঁজ ছিল ২৩ জন । শুক্রবারে জুম্মার নামাজের পরপরই এই ভয়ঙ্কর ঘটনা ঘটেছিল । ভূমিধস এতটা ভয়ঙ্কর ছিল যে , বেনজারনিগার ৩০০ টি ঘর বাড়ি ধ্বংস হয়ে যায়  ।উদ্ধারকাজে ইন্দোনেশিয়ান সরকার সেনাবাহিনীকে  ব্যবহার করেছিলেন । ইন্দোনেশিয়ায় ইতিহাসের.২০০৬ সালের পর এত বেশি ক্ষতি আর কোন ভূমিধস হয়নি ।এই দিনে নিহতদের স্মরণে  বিশেষ প্রার্থনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয় । 

Landslide
Indonesia Landslide 2014 Photo: Banjarnegara landslide, via the Straits Times

মাউন্টেন হেলেন যুক্তরাষ্ট্র Landslide ( ১৯৮০সাল ১৮ মে)

 প্রযুক্তি এবং সামরিক দিক দিয়ে যুক্তরাষ্ট্র এখন  অন্যান্য দেশের ধরাছোঁয়ার বাইরে । যুক্তরাষ্ট্র প্রযুক্তিগত দিক দিয়ে উন্নত হলেও প্রকৃতিতে যে বরাবরই স্বাধীন তার অন্যতম প্রমাণ হলো ১৯৮০ সালের ১৮ ই মে যুক্তরাষ্ট্রের মাউন্টেন হেলেনে ঘটে যাওয়া যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে সবচেয়ে বড় ভূমিধস । ধারণা করা হয় ক্ষয়- ক্ষতির দিক দিয়ে এটিই পৃথিবীর সবচেয়ে বড় ভূমিধস ।এই ঘটনার সূত্রপাত হয়েছিল যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াশিংটন ডিসির  মাউন্টেন হেলেনে একটি ভলকানোর প্রভাবে । এতে ক্ষতির পরিমাণ ছিল ১.১বিলিয়ন মার্কিন ডলার ।নিহতের সংখ্যা ছিল ৫৭ জন । আমেরিকান সেনাবাহিনীর তাৎক্ষণিক তৎপরতার কারণে নিহত এবং হতাহতদের দ্রুত  উদ্ধার করা সম্ভব হয় ।

May 18, 1980 eruption of Mount St. Helens in Washington State.
Please follow and like us:
error0
fb-share-icon
Tweet 20
fb-share-icon20