colorgeo.com

Disaster and Earth Science

ভূমিকম্প ঝুঁকিঃ Earthquakes in Bangladesh

earthquakes in Bangladesh

যদি এক কথায় এর উত্তর দেয়া হয় তবে সবাই ঢাকা শহরকে বলবে যে বাংলাদেশের সব থেকে ভূমিকম্প ঝুঁকিতে রয়েছে। ভূমিকম্প ঝুঁকি আর ভূমিকম্প প্রবণ দুইটা ভিন্ন বিষয়। বাংলাদেশের ভূমিকম্প প্রবণ এলাকা বলতে বোঝায় পার্বত্য চট্টগ্রাম এর পাহাড়ি অঞ্চল কে। কারণ টেক্টনিক সরণের কারণে এখানকার এলাকা দীর্ঘদিন ধরে শক্তি জমা হয়েছে। তা যে কোন সময় অবমুক্ত হতে পারে। আর তখন বড় আকারে ভূমি কম্প হতে পারে এবং বড় রকমের ক্ষয় ক্ষতি হতে পারে। বাংলাদেশের টেক্টনিক প্লেট এর গতি হলে ৬ সেমি/বছর। Earthquakes in Bangladesh পাওয়ারপয়েন্ট প্রেজেন্টেশান রমন কুমার বিশ্বাস ppt

lecture 1

DRE 421 (Earthquakes Engineering and Management)

ঢাকা যদিও অনেক ঘন বসতি পূর্ণ এলাকা তবে পার্শ্ববর্তী এলাকাতে ভূমিকম্প হলে এখানে ক্ষতি হবে। শুধু মাত্রা ঢাকা শহরের আছে পাশে কোন বড় ধরনের ফাটল নাই যা থাকে ভূমি কম্প হতে পারে সীমান্ত এলাকা য় অবস্তিত ডাউকি ফাটল ছাড়া।

তবে যেভাবেই হোক না কেন ঢাকাতে যদি বড় রকমের ভুমিকম্প হয়ে থাকে তবে আমাদের কিছু করার নাই শুধু তাকিয়ে তাকিয়ে দেখা ছাড়া। তাই এখন থেকেই ভূমি কম্প সহনীয় ইমারত তৈরি করতে হবে এবং বাড়ি তৈরির সরকারি কোড মনে চলতে হবে।

আগামী ১০ বছরের মধ্যেই কোন ভূমিকম্প হতে পারে যা বাংলাদেশকে ক্ষতি করতে পারে।

বিশেষজ্ঞদের মতে বাংলাদেশ ও পার্শ্ববর্তী অঞ্চলে সাধারানত ১০০ বছর পর পর বড় ধরনের ভূমি কম্প হয়। সেই হিসাবে ইতিমধ্যে বড় রকমের ভূমি কম্প সংগঠিত হয়ে গিয়েছে তাই এখন নতুন কোন ভূমিকম্পের জন্য আমাদের আপেক্ষা করা ছাড়া কি করার নাই। এখন ই আমাদের সতর্ক হতে হবে।

বাংলাদেশে চারিদিকে ইন্ডিয়ান প্লেট ও বার্মিজ প্লেট এর জটিল সরণ গতি ভূমিকম্পের গতি প্রকৃতি বোঝার ব্যপারে জটিল হয়েছে। মিশ্র প্লেট গুলোর গতি সরল ভাবে এর সঞ্চিত শক্তি র অবমুক্ত করন এর মেকানিজম বোঝাতে জটিল করে দেয়। তবে বাংলাদেশের উত্তর পূর্ব কোনে দাউকি Dauki ফল্ট বাংলাদেশের নিকট ভূমিকম্পের ব্যাপারে বেশ উদ্বেগ জনক। কারণ প্লেট তেক্তনিকের কারণে জমা কৃত শক্তির অবমুক্তি হলে আই একটি ফল্ট এর দুর্বল স্থান দিয়েই অবমক্তি হতে পারে। তাই পার্শ্ববর্তী অঞ্চল খুব বেশি ঝুঁকিতে আছে। বিশেষত ঢাকা তে অনেক ইমারত ধ্বংস হবে। একটা ৭ মাত্রার ভূমিকম্প হলে এখানে ধ্বংস লীলা হতে পারে বলে। বাংলাদেশের ভূতত্ত্ব ও ভূমিকম্প নিয়ে জাঁক করে ঢাকা বিশ্ব বিদ্যালয়ের প্রফেসর ও ওপেন ইউনিভারসিটির উপাচার্য হুমায়ন আকতার।

Please follow and like us:
error0
fb-share-icon
Tweet 20
fb-share-icon20